Main Menu

জয়ের সম্ভাবনা জাগিয়েও হেরে গেল ক্যারিবিয়ানরা

বিশ্বকাপের ৩৯তম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩৩৮ রান তাড়া করে রেকর্ড জয়ের সম্ভাবনা জাগিয়েও  হেরে গেল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ম্যাচটি ক্যারিবিয়ানরা ২৩ রানে হেরে যায়। 

শ্রীলঙ্কার দেয়া ৩৩৯ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে ভাল শুরু করতে পারেনি ওয়েস্ট ইন্ডিজ। মালিঙ্গার জোড়া আঘাতে ৭১ রানেই তিন উইকেট হারায় ক্যারিবিয়ানরা। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে হোল্ডার বাহিনী। ১৯৯ রানে ছয় উইকেট হারানোর পর দলের হাল ধরেন নিকোলাস পুরান ও ফ্যাবিয়ান এলেন। এ দুই জনের ৮৩ রানের জুটি ভাঙ্গে এলেন রান আউট হলে।

এলেন আউট হলেও পুরান তুলে নেন ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি। মারমুখী ব্যাটিংয়ে জাগিয়ে রাখেন জয়ের সম্ভাবনা। তবে ইনিংসের ৪৮তম ওভারেই রেকর্ড জয়ের স্বপ্নভঙ্গ হয় ক্যারিবিয়ানদের। ওভারের প্রথম বলেও ম্যাথিউসের অসাধারণ এক ডেলিভারিতে উইকেট কিপারের হাতে ক্যাচ তুলে দেন সেঞ্চুরিয়ান পুরান। তিনি আউট হন ব্যক্তিগত ১১৮ রানে। মূলত ম্যাথিউসের ওই ওভারে পুরান আউট হলেই ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় উইন্ডিজরা। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে ৫০ ওভার শেষে তারা সংগ্রহ করতে পারে ৯ উইকেটে ৩১৫ রান। ফলে ২৩ রানের জয় পায় শ্রীলঙ্কা।

এর আগে, চেস্টার লি স্ট্রিটের রিভার সাইড গ্রাউন্ডে টস হেরে লাভ হলো লঙ্কানদের। উইন্ডিজদের আমন্ত্রণে ব্যাটিং পেয়ে রানের পাহাড় গড়লো তারা। ৫০ ওভার ব্যাটিং করে ৩৩৮ রান সংগ্রহ করে লংকানরা। ব্যাটিংয়ে নেমে ওপেনিং জুটিতে ৯৩ রানের জুটি গড়েন অধিনায়ক করুণারত্নে ও কুশল পেরেরা। ৩২ রান করে লঙ্কান অধিনায়ক বিদায়ন নেন। ৫১ বলে ৬৪ রানের মারমুখি ব্যাটিং করে রানআউট হন পেরেরা।

এরপরই ক্রিজে আসেন ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান আভিস্কা ফার্নান্দো। ক্রিজে নেমে কুশল মেন্ডিসকে নিয়ে তৃতীয় উইকেট জুটিতে ৮৫ ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসকে নিয়ে চতুর্থ উইকেটে যোগ করেন ৫৮ রান। ৩৯ রান করে মেন্ডিস ও ২৬ রান করে ম্যাথিউস আউট হলেও লঙ্কানদের বড় সংগ্রহের পথে নিয়ে যান ২১ বছরের এ তরুণ।  ফার্নান্দো তুলে নেন ক্যারিয়ারের ও বিশ্বকাপে প্রথম সেঞ্চুরি। তিনি থামেন ১০৩ বলে ১০৪ রান করে।

শেষ দিকে অভিজ্ঞ লাহিরু থিরিমান্নে ৩৩ বলে ৪৫ রানের ইনিংস খেলেন। উইন্ডিজদের পক্ষে জেসন হোল্ডার দুইটি, শেলডন কটরেল, ফ্যাবিয়ান অ্যালান ও ওশান থমাস একটি করে উইকেট নেন। শেষ দশ ওভারে ৮৫ রান তোলে লঙ্কানরা। ইনিংসে চারটি পঞ্চাশ ছোঁয়া জুটি গড়ে তারা।






News Room - Click for call