Main Menu

আগুন নিয়ে খেলছে ইরান, বললেন ট্রাম্প

মধ্যপ্রাচ্যের তেল সমৃদ্ধ দেশ ইরান এখন আগুন নিয়ে খেলা করছে বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সোমবার (১ জুলাই) তেহরান ইউরেনিয়াম মজুদের সীমা বাড়ানোর ঘোষণা দেওয়ার পরপরই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের পক্ষ থেকে এই প্রতিক্রিয়া জানানো হলো। 

চলমান ইরান-মার্কিন দ্বন্দ্ব ইস্যুতে করা প্রতিবেদনে বার্তা সংস্থা ‘রয়টার্স’ জানায়, হোয়াইট হাউসে প্রেসিডেন্টের কাছে প্রশ্ন ছিল তেহরানের প্রতি তার কোনো বার্তা আছে কি-না? উত্তরে ট্রাম্প বলেন, ‘ইরানের প্রতি আমার কোনো বার্তা নেই। তেহরান জানে যে তারা এখন ঠিক কী করছে। তাদের জানা উচিৎ যে তারা কী নিয়ে খেলা করছে। আমি মনে করি, তারা আগুন নিয়ে খেলছে। সুতরাং এখন যাই ঘটুক না কেন, ইরানের প্রতি আমার আর কোনো বার্তা নেই।’

এর আগে ইরানি পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মাদ জাওয়াদ জারিফ বলেছিলেন, ‘তেহরান এখন ইউরেনিয়াম মজুদের সীমা বৃদ্ধি করেছে। পরিকল্পনা অনুযায়ী ইরানের ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধির পরিমাণ সর্বোচ্চ ৩০০ কেজি ছাড়িয়েছে। আমরা অনেক আগেই এ ঘোষণা দিয়েছিলাম।’

এ দিকে বিশ্লেষকদের দাবি, ২০১৫ সালে স্বাক্ষরিত ছয় জাতীর পরমাণু সমঝোতা চুক্তি অনুযায়ী ইরান ৩০০ কেজি পর্যন্ত ইউরেনিয়াম মজুদ করতে পারতো। যদিও সেই সমঝোতার ২৬ ও ৩৬ নম্বর ধারায় বলা ছিল, অপর পক্ষগুলো এ সমঝোতা বাস্তবায়নে ব্যর্থ হলে তেহরান চাইলে এর কোনো কোনো ধারার বাস্তবায়ন স্থগিত রাখতে পারবে। মূলত সেই দিক বিবেচনায় এবার ইরান এমন পদক্ষেপ নিল।

গত সোমবার তেহরানের গুরুত্বপূর্ণ শহর নাতাঞ্জে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে জাওয়াদ জারিফ ইউরেনিয়াম মজুদের সীমা বাড়ানোর বিষয়ে এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বার্তা সংস্থা ‘ইসনা’র এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেছিলেন, ‘আমার জানা মতে ইরান ইউরেনিয়াম মজুদের সীমা অতিক্রম করেছে। আমরা যে ঘোষণা দিয়েছি তা খুবই পরিষ্কার এবং আমরা এটাই মনে করি, পরমাণু সমঝোতা অনুসারে এটি আমদের একটি অধিকার।’

অপর দিকে গত ১৭ জুন দেশটির আণবিক শক্তি সংস্থার মুখপাত্র বেহরুজ কামালভান্দি বলেছিলেন, ‘২৭ জুন থেকে তেহরান আর পরমাণু সমঝোতা অনুযায়ী ইউরেনিয়াম মুজদের সীমা মানবে না।’

কর্তৃপক্ষের বরাতে ‘রয়টার্স’ জানায়, ইউরেনিয়ামের মজুদ সীমা অতিক্রমের বিষয়ে ইরানের দেওয়া ঘোষণাটি এরই মধ্যে যাচাই করতে শুরু করেছে আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা (আইএইএ)। সম্পূর্ণ বিশ্লেষণ শেষে এ বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।






News Room - Click for call