Main Menu

কোটালীপাড়ায় দ্বিতীয় স্ত্রী কে মেনে না নেওয়ায় প্রথম স্ত্রী কে শারীরিক নির্যাতন

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলার দীঘলিয়া গ্রামে দ্বিতীয় স্ত্রী কে মেনে না নেওয়ায় দুই সন্তানের জননী প্রথম স্ত্রী রীনা বেগম (২৫) কে শারীরিক নির্যাতন করেছে স্বামী লালন খলিফা (৩৫) ।

গত বৃহস্পতিবার (১৩ আগষ্ট ) এ ঘটনা ঘটে । জানা যায় , পার্শ্ববতী বাগধা গ্রামের আহম্মাদ খলিফার মেয়ে রীনা বেগম এর সাথে ১৫ বছর
পূর্বে বিয়ে হয় দীঘলিয়া গ্রামের আশরাফ আলী খলিফার ছেলে লালন খলিফার । বিয়ের সময় শশুর বাড়ী থেকে মেয়ের জামাই কে ৫০ হাজার টাকা যৌতুক দেয়া হয় । ব্যবসার সুবাদে নবাবঞ্জে দ্বিতীয় বিয়ে করে । বন্ধ করে দেয় প্রথম স্ত্রী ও সন্তানদের খোজখবর নেয়া । এক পর্যায়ে ঘটনার দিন বিকালে দ্বিতীয় স্ত্রী কে নিয়ে লালন বাড়িতে আসলে প্রথম স্ত্রী রীনা ঘরে ঢুকতে বাধা দেয় । ক্ষিপ্ত হয়ে দিনে ও রাতে শারীরিক নির্যাতন চালায় লালন ।

খবর পেয়ে ভাঙ্গারহাট ফাঁড়ি পুলিশ ঘটনা স্থলে পৌঁছে রীনা বেগম কে উদ্ধার করে ।

স্বজনেরা তাকে চিকিৎসার জন্য কোটালীপাড়া হাসপাতালে ভর্তি করে । এলাকাবাসী জানান, লালন তার স্ত্রী রীনা বেগমকে বিয়ের পর থেকে শারীরিক নির্যাতন করে আসছে ।

লালনের ছেলে-মেয়েদের জিজ্ঞাস করা হলে তারা মারপিটের ঘটনা স্বীকার করে এবং অভিযুক্ত লালনের পিতা আশরাফ আলী খলিফা বলেন, ছোট বৌ মা ঘরে ঢুকতে গেলে , বড় বৌ মা ধাক্কা দিয়ে পানিতে ফেলে দেয়, তখন স্বামী স্ত্রীর মধ্যে বিবাদ হয় ।

এবিষয়ে স্বামী  লালনের সাথে যোগাযোগের জন্য বাড়িতে গেলে তাকে পাওয়া যায় নাই । এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুতি চলছে ।






News Room - Click for call