Main Menu

শরীয়তপুর থেকে অজ্ঞান পাটির ৪ সদস্য আটক করেছে মাদারীপুর র‌্যাব-৮

সিপিসি-৩ এর মাদারীপুর র‌্যাব-৮ ক্যাম্পের কোম্পানী অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মাদ তাজুল ইসলাম প্রেস ব্রিফিং এর মাধ্যমে সাংবাদিকদের জানান, একটি বিশেষ আভিযানিক দল সোমবার (২০ জুলাই) সকাল ৯ টায় শরীয়তপুর জেলার পালং ও জাজিরা থানার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে অজ্ঞান পার্টির ৪ সদস্যকে আটক করেন।

আকটকৃতরা হলো, মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার বদরপাশা ইউনিয়নের কাজী কাঁঠাল এলাকার আদল উদ্দিন শেখ এর ছেলে মোঃ দিদার শেখ (৩৮), শরীয়তপুরের পালং উপজেলার আমতলীর মৃত কালাই বেপারীর ছেলে আবুল কালাম (৪৫), পালং উপজেলার মনকোলার ফজলুর হক বেপারীর ছেলে মোঃ শহিদুল ইসলাম (৩২), পালং উপজেলার নীল কান্দি মোবারক আলী মুন্সীর ছেলে  মেহেদী হাসান সাইফুল (৩৭)।

ঘটনার বিবরণে জানা যায় , গত ১৫ জুলাই সকাল আনুমানিক সাড়ে ১০ টার দিকে রিফাত শেখ (১৯) ইজিবাইক নিয়ে ভাড়া টানার জন্য মোস্তফাপুর বাসস্ট্যান্ডে বের হয়। সেখান থেকে অজ্ঞাত ৪/৫ জন লোক রিফাতের ইজিবাইকটি মাদারীপুর সদরের কাজিরটেক ফেরীঘাট যাবে বলে ভাড়া করে। যাওয়ার পথে মহিষের চর পাঁকা মসজিদের সামনে ইজিবাইক চালক রিফাতকে নাক চেপে ধরে মাজায় ইনজেকশন দিয়ে হাত পা বেধে রাস্তার পাশে ফেলে দেয়। পরে ইজিবাইক ও ব্যবহৃত মোবাইলটি নিয়ে যায়। এই অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব-৮, মাদারীপুর ক্যাম্পের বিশেষ টিম কোম্পানী অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মাদ তাজুল ইসলাম এর নেতৃত্বে সকালে শরীয়তপুর জেলার পালং ও জাজিরা থানার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে অজ্ঞান পাটির ৪ সদস্যকে আটক করেন । এসময় ইজিবাইক ও মোবাইল ফোনটি উদ্ধার করা হয়। আকটকৃত আসামীদেরকে মাদারীপুর সদর থানায় হস্তান্তর করে র‌্যাব। এ সংক্রান্তে ভিকটিম নিজেই বাদী হয়ে মাদারীপুর সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করে।






News Room - Click for call