Main Menu

গৃহবধুর অশ্লীল ছবি ও ভিডিও ধারণ করার অভিযোগে র‍্যাবের হাতে যুবক আটক

আপত্তিকর অশ্লীল ছবি ও ভিডিও ধারণ করে ফেইসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া থেকে এক যুবক মোঃ আলী আজম(২৯) কে আটক করেছে মাদারীপুর র‍্যাব-৮।

র‍্যাব-৮, সিপিসি-৩, মাদারীপুর কোম্পানী অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম জানান, গত ১৫ জুন র‍্যাব-৮, সিপিসি-৩, মাদারীপুর ক্যাম্পের নিকট অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগের ভিত্তিতে মঙ্গলবার রাতে শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া উপজেলার বারুইপাড়া গ্রাম এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে এক গৃহবধুর আপত্তিকর অশ্লীল ছবি ও ভিডিও ধারণ করার অভিযোগে মোঃ আলী আজমকে আটক করে। আটককৃত আলী আজম শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া উপজেলার হালিসার গ্রামের আব্দুস সোবাহান হাওলাদারের ছেলে।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, ২০১৪ সালের আগষ্ট মাসে অভিযুক্ত মোঃ আলী আজম এর সাথে ভিকটিমের বিবাহ হয়। বিবাহের পর থেকে অভিযুক্ত ভিকটিমকে ভয়ভীতি দেখিয়ে এবং বিভিন্ন অজুহাতে শারীরিক ও মানষিক ভাবে নির্যাতন করতে থাকে। অভিযুক্ত ব্যক্তি ভিকটিমের সাথে শারীরিক মেলামেশার সময় ভিকটিমের ইচ্ছার বিরুদ্ধে কৌঁশলে তার মোবাইলে বিভিন্ন ভাবে অশ্লীল ছবি ও ভিডিও ধারণ করে। একপর্যায়ে ভিকটিম অভিযুক্তের নির্যাতনে অতিষ্ট হয়ে ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বর মাসে সিরাজগঞ্জ বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে ভিকটিমের বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটায়। অভিযুক্ত মোঃ আলী আজম ক্ষিপ্ত হয়ে ভিকটিমের নামে একাধিক ফেইসবুকে ফেইক আইডি ব্যবহার শুরু করে।

পরবর্তীতে অভিযুক্ত তার ফোনের মাধ্যমে ভিকটিমের উক্ত অশ্লীল ছবি ও ধারণকৃত ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে ভিকটিমের বাবাকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি দিতে থাকে। একপর্যায়ে ভূয়া ফেইসবুক আইডি দিয়ে বিভিন্ন লেখাসহ ভিকটিমের অশ্লীল ছবি ও ধারণকৃত ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়।

আটককৃত আসামীকে নড়িয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। উক্ত ঘটনার বিষয়ে ভিকটিম বাদী হয়ে নড়িয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।






News Room - Click for call